জীবন বাঁচানোর ম্যাচে উইন্ডিজের বিপক্ষে যে একাদশ সাজিয়ে দিলেন সৌরভ গাঙ্গুলী!

জীবন বাঁচানোর ম্যাচে উইন্ডিজের বিপক্ষে যে একাদশ সাজিয়ে দিলেন সৌরভ গাঙ্গুলী!


ads

সুযোগ পেলে বাংলাদেশ জাতীয় দল কে সাহায্য করতে চান ভারতের সাবেক অধিনায়ক সৌরভ গাঙ্গুলী। কলকাতা ক্রিকেট বোর্ডের প্রধান হিসেবে কাজ করছেন ভারতের এই সাবেক অধিনায়ক। তবে বর্তমানে বিশ্বকাপের ধারাভাষ্য এবং ক্রিকেট বিশ্লেষক হিসাবে লন্ডনে রয়েছেন তিনি।

মাছরাঙ্গা টেলিভিশনকে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে সৌরভ গাঙ্গুলি বলেন, “বাংলাদেশ এবারের বিশ্বকাপের ভালো দল। তবে একজন জোরে বোলিং করার মতো ফাস্ট বলার দরকার।

তাসকিনের ইনজুরি বাংলাদেশকে একটু সমস্যার মধ্যে ফেলেছে। এটা বাদে বাংলাদেশ দল অসাধারণ। সাকিব দারুণ ফর্মে আছে মুশফিক অসাধারণ খেলছেন। আমি মনে করি বাংলাদেশের চেষ্টা করা উচিত যত সম্ভব আগে ব্যাটিং করা।

আগে ব্যাটিং করে বড় রান সংগ্রহ করে প্রেশার ক্রিয়েট করা। যেমন দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে আগে ব্যাটিং করে বড় রান সংগ্রহ করেছে বাংলাদেশ যার কারণে ম্যাচে জয়লাভ করেছে তারা।

তবে বাংলাদেশ দলের ফাস্ট বোলিং এর পরিবর্তন চান তিনি। অল রাউন্ডার সাইফুদ্দিন এর পরিবর্তে ফাস্ট বোলার রুবেল হোসেনকে একাদশে দেখতে চান সৌরভ গাঙ্গুলী। সাক্ষাৎকারে তিনি আরো বলেন, “অল রাউন্ডার দরকার নেই যদি রুবেল হোসেনের ফিট থাকে তাহলে তাকে খেলানো উচিত।

তার কারণ রুবেল হোসেনের জোর বল করতে পারে। ডেথ ওভার এসে ভালো বোলিং করতে পারে। আর যদি ৭ নম্বার ব্যাটসম্যান না পারে তাহলে ৮ নম্বর ব্যাটসম্যান পারবে না। মাহমুদুল্লাহ আছে মিঠুন আছে তারা ৭-৮ নম্বার নম্বর পর্যন্ত ব্যাটিং করতে পারে। এর বেশি আর দরকার নেই।

বাংলাদেশ ক্রিকেটকে হেল্প করার জন্য আমি সব সময় রেডি। তবে এখন আমি সেটা নিয়ে ভাবি নি। তবে বাংলাদেশ ক্রিকেটকে সাহায্য করতে সব সময় রেডি আমি।

একাদশ পরিবর্তনের ক্ষেত্রে সবচেয়ে বেশি উচ্চারিত হচ্ছে রুবেল হোসেনের নাম। ইংল্যান্ডের কন্ডিশনে কার্যকরী এই পেসার এখনো এবারের বিশ্বকাপে মাঠে নামার সুযোগ পাননি। তবে সমর্থকদের বড় অংশ তাকে মাঠে দেখতে উন্মুখ হয়ে আছেন। এমনকি রুবেল একাদশে সুযোগ না পাওয়ার বিস্ময় প্রকাশ করেছেন ভারতের কিংবদন্তী সাবেক ব্যাটসম্যান সৌরভ গাঙ্গুলি।

তবে দুটি ম্যাচ হারা বাংলাদেশের এখনো বিশ্বকাপের নকআউট পর্ব তথা সেমিফাইনালে কোয়ালিফাই করার সুযোগ দেখছেন সৌরভ। তবে সেজন্য ছিনিয়ে নিতে হবে জয়- মনে করিয়ে দিয়েছেন তাও।

সৌরভ বলেন, ‘বাংলাদেশ ভালো দল। সাকিব অসাধারণ খেলল। সাকিব পুরো বিশ্বকাপেই তো ভালো করছে, তাও ভালো দলের সাথে- দক্ষিণ আফ্রিকা, নিউজিল্যান্ড, ইংল্যান্ড। তবে দলের শুধু ভালো খেললে তো হবে না, ম্যাচ জিততে হবে। ছয়টা ম্যাচের মধ্যে হয়ত ছয়টাই জিততে হবে।’

সৌরভের পছন্দের বাংলাদেশের সম্ভাব্য একাদশঃ তামিম ইকবাল, সৌম্য সরকার, সাকিব আল হাসান, মুশফিকুর রহিম, মাহমুদুল্লাহ রিয়াদ, রুবেল হোসেন, মোহাম্মদ মিঠুন/লিটন দাস, মেহেদি হাসান মিরাজ, মোহাম্মদ সাইফউদ্দিন, মাশরাফি বিন মুর্তাজা (অধিনায়ক) এবং মুস্তাফিজুর রহমান।

আরো পড়ুনঃ আস্ট্রেলিয়া ভারত থেকে পিছিয়ে বাংলাদেশ থাকার কারণ ব্যখ্যা করলেন রোডস

অস্ট্রেলিয়া, ভারত, নিউজিল্যান্ডের মতো বড় দলগুলোর সাথে বাংলাদেশের পার্থক্য তুলে ধরেছেন কোচ স্টিভ রোডস। তাঁর মতে কোয়ালিটির দিক থেকে এখনও কিছুটা পিছিয়ে রয়েছে বাংলাদেশ। যদিও দলের খেলোয়াড়দের সামর্থ্য নিয়ে সন্দেহ নেই তাঁর।

এবারের বিশ্বকাপের শুরুটা দারুণ করেছিল বাংলাদেশ। দক্ষিণ আফ্রিকাকে হারিয়ে আত্মবিশ্বাসে টইটম্বুর থাকা টাইগাররা নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে পরের ম্যাচেও অসাধারণ পারফর্ম করেছিল। যদিও কিছু ভুলের কারণে সেই ম্যাচটি আর জেতা হয়নি তাদের।

এরপর ইংল্যান্ডের কাছেও হারতে হয়েছে বড় ব্যবধানে। তবে দলের খেলোয়াড়দের প্রতি আস্থা রয়েছে রোডসের। নিজেকে উজাড় করে দিয়ে খেলার মতো বেশ কিছু খেলোয়াড় আছে দলে বলেই উত্তরোত্তর উন্নতি করতে পারছে বাংলাদেশ, মনে করছেন এই ইংলিশ কোচ। ক্রিকইনফোর সাথে আলাপকালে তিনি বলেছেন,

‘আমাদের বড় দলগুলোর বিপক্ষে প্রতিযোগিতা করার অধিকার রয়েছে। অবশ্য কোয়ালিটির দিক থেকে বড় দলগুলোর থেকে আমাদের কিছুটা ঘাটতি রয়েছে। তবে আমি বলবো যে আমাদের এমন কিছু ক্রিকেটার আছে যারা যথেষ্ট চেষ্টা করে এবং নিজেদের উজাড় করে দিয়ে খেলে। আমাদের বেশ সামর্থ্যও আছে। সাকিব অসাধারণ খেলছে।’

ব্যাট হাতে বর্তমানে ভালো ফর্মে আছেন বাংলাদেশ দলের ওপেনার সৌম্য সরকার। দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে তামিম ইকবালের সাথে দলকে একটি ভালো শুরু এনে দেয়ার ক্ষেত্রে অগ্রণী ভূমিকা পালন করেছিলেন সৌম্য। অপরদিকে ফর্মে আছেন লিটন দাস, মিরাজ এবং মুস্তাফিজরাও। তাঁদের উদাহরণ টেনে রোডস বলেছেন,

‘সৌম্য নিজেকে খুঁজে পাচ্ছে। লিটন ভালো ফর্মে আছে, যদিও সে খেলছে না। সাব্বির গত নিউজিল্যান্ড সফরে সেঞ্চুরি হাঁকিয়েছিল এবং মিরাজ গত দুই তিন বছর দারুণ বোলিং করছে। মুস্তাফিজ এবং সাইফুদ্দিনের কথা কেউ উল্লেখ করেনি, তাঁরা উঠে এসেছে। সুতরাং আমি মনে করি আমরা আরো শক্তিশালী হয়ে উঠছি।’

Please Share This Post in Your Social Media

ads

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




© All rights reserved © 2019 khelajogbd
Design BY NewsTheme